Google Ads

অনলাইন শপিং করেন ! নয়া ঘোষণা ই_কমার্স নিয়ে,,

অনলাইন শপিং করেন ! নয়া ঘোষণা ই_কমার্স নিয়ে। 


কলকাতা, নিজস্ব সংবাদদাতা : গালওয়ান উপত্যকায় চীন ও ভারতের মধ্যে যে সংঘর্ষের পরিস্তিতি তৈরী হয়েছে। সেই বিষয়কেই মূলত কেন্দ্র করে দেশে বাতিল করা হয়েছে কতকগুলো চীনা app। এখন তারই প্রভাব হয়তো পড়তে চলেছে এবার ই_কমার্স ওয়েবসাইট - ফ্লিপকার্ট, আমাজন ও অন্যান্য জায়গাগুলোতেও। এরকমই ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে DPIIT এর নয়া ঘোষণা থেকে। 

আমরা সবাই কম বেশি অনলাইন থেকেই জিনিসপত্র কিনে থাকি। তবে যেসমস্ত জিনিস গুলো এই ওয়েবসাইট থেকে আমরা কিনি সেগুলোও কোনো না কোনো জায়গায় থেকে কেনা হয়। কিন্তু সেই পণ্য গুলো ঠিক কোন জায়গার সে সম্পর্কে কোনো বিবরণী দেওয়া থাকেনা। এবার সেই তথ্য জানানো বাধ্যতামূলক বলে ঘোষণা করল শিল্প ও অভ্যন্তরীন বাণিজ্য বিভাগ। DPIIT থেকে জানানো হয়েছে, এবার থেকে ওই ওয়েবসাইট থেকে যে সমস্ত পণ্য বিক্রি করা হবে সেই সব পণ্য গুলোর বিবরণীর মধ্যে country of origin অর্থাৎ পণ্যটি কোন দেশের তার উল্লেখ থাকতে হবে। 

কাল বুধবার এই বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছিল মন্ত্রী সভায়। জানা গিয়েছে এ সম্পর্কে ওই সংস্থাগুলোকে জানানো হয়েছে। এই নতুন নিয়ম অনুযায়ী কোনো সংস্থা সেইভাবে কোনো বিরোধিতা করেনি। তবে যেহেতু এই সমস্ত ওয়েবসাইট একটা দুটো জিনিস নই হাজার হাজার জিনিস প্রতিনিয়ত বিক্রি হয়, তাই হটাৎ করে সবগুলোর ডিটেলস পরিবর্তন করতে কিছুটা সময় লেগে যাবে বলে জানিয়েছে তারা। 

সূত্রের খবর অনুযায়ী, এই ই_কমার্স সংস্থাগুলোকে ১লা অগাস্ট ডেডলাইন হিসাবে দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ ১লা অগাস্ট এর পর থেকে যে সমস্ত নতুন পণ্য এই ওয়েবসাইটগুলোতে নথিভুক্ত করা হবে সেগুলোর পাশে জানো অতি অবসসই country of origin এর উল্লেখ থাকে বলে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। মূলত দেশের পণ্য যাতে বেশি বিক্রি হয় (made in india products) সেই কারণেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র। 

Post a Comment

0 Comments