Google Ads

UGC এর দ্বারা গাইডলাইন জারি করা হলো কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শুরুর সাপেক্ষে

 

UGC এর দ্বারা গাইডলাইন জারি করা হলো কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শুরুর সাপেক্ষে

কলকাতা, নিজস্ব সংবাদদাতা: কেন্দ্রের আগের ঘোষণা অনুযায়ী কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় চালু হওয়ার কথা রয়েছে। কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক পরীক্ষাগুলি 21 তারিখের মধ্যে সমাপ্ত করে 30 তারিখের মধ্যে ফল প্রকাশ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল এবং 1 নভেম্বর থেকেই ক্লাস শুরু করে তবে স্নাতক ও প্রথম স্তরে ছাত্র-ছাত্রীদের । তবে যে সমস্ত কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়গুলো 30 তারিখের মধ্যে ফলাফল প্রকাশ করতে পারবে না তাদের জন্য ছাড় দেওয়া হয়েছে 18 তারিখ পর্যন্ত কিন্তু তারপরে তাদেরকেও ক্লাস শুরু করে দিতে হবে।


কিন্তু করোনা পরিস্থিতিতে বেশ কিছুদিন ক্লাস না হওয়ায় প্রথম স্তরে ছাত্র-ছাত্রীদের পঠন পাঠনে বেশ বিঘ্নতা দেখা দিয়েছে, যেগুলো মেটাবার জন্য UGC নির্দেশিকা অনুযায়ী বেশকিছু ছুটির কাটছাঁট করবে বলে জানা যাচ্ছে।


তবে কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় শুরু করার জন্য বেশকিছু গাইডলাইন জারি করেছে UGC মাধ্যমে সেগুলি নিচে দেওয়া হল,-


#1) যে সমস্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গুলি পরীক্ষার মাধ্যমে এডমিশন নেয়। তাদের সেই প্রক্রিয়া এখনো শেষ না হলে, প্রথম বর্ষের শিক্ষা শুরু করে দিতে পারে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব। এক্ষেত্রে প্রভিশনাল অ্যাডমিশন করে রাখতে পারে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। 31 শে ডিসেম্বর পর্যন্ত পরীক্ষা সংক্রান্ত যাবতীয় নীতি গ্রহণ করা হবে।


#2) মেধাভিত্তিক ছাত্র ভর্তির প্রক্রিয়া প্রথম বর্ষের অক্টোবর মাসের মধ্যেই সমাপ্ত করতে হবে। পড়ে থাকা আসনগুলি 30 নভেম্বরের মধ্যে পূরণ করে নিতে হবে।


#3) ইউজিসির নির্দেশিকা অনুযায়ী জানানো হয়েছে নভেম্বর মাস থেকেই প্রথম স্তরের ছাত্র-ছাত্রীদের ক্লাস শুরু হবে। যদিও এর মধ্যে অনলাইন বা অনলাইন অফলাইন ক্লাস চালু রাখতে হবে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিকে।


#4) বর্তমান আর্থিক সমস্যার কথা মাথায় রেখে যে সমস্ত ছাত্র-ছাত্রীদের ভর্তি হয়নি বা ভর্তি ক্যান্সেল হয়ে গেছে তাদের সম্পূর্ণ টাকা ফিরিয়ে দেওয়া হবে।


#5) প্রত্যেক বিশ্ববিদ্যালয়কে সপ্তাহের ছয়দিন ক্লাস নিতে হবে শিক্ষাবর্ষ 2020-21। এ শিক্ষাবর্ষে ছাত্রদের পঠন-পাঠনের যা ক্ষতি হয়েছে তা শোধরানোর এটি একমাত্র উপায়।


#6) ইউজিসি দ্বারা যে গাইডলাইন জারি করা হয়েছিল 29 এপ্রিল এবং 6 জুলাই স্বাস্থ্যবিধির সম্পর্কিত। সেই গাইডলাইনের কোনো পরিবর্তন করা হবে না সেই ভাবেই পড়ানো হবে ছাত্র-ছাত্রীদের।


#7) বিশ্ববিদ্যালয়গুলি কে অনুরোধ জানানো হয়েছে,বর্তমান শিক্ষা বর্ষে বা আগামী শিক্ষাবর্ষে পঠন পাঠনে যে ক্ষতি হয়েছে, তা যেন ছুটি গুলির কাটছাঁট করার মাধ্যমে পূরণ করে দেওয়া হয়। তাহলে চূড়ান্ত শিক্ষাবর্ষের ছাত্র ছাত্রীদের ডিগ্রী সময় মাফিক দেওয়া যাবে।


#8) বর্তমান পরিস্থিতি এবং শিক্ষার্থীদের স্বার্থের কথা মাথায় রেখে এই গাইডলাইন গুলি জারি করা হয়েছে। তবে প্রয়োজনমতো এগুলি পরিবর্তন করা হতে পারে বা নতুন গাইডলাইন জারি করা হতে পারে।

Post a Comment

0 Comments